ঢাকামঙ্গলবার , ১৯ অক্টোবর ২০২১
  1. #টপ৯
  2. #লিড
  3. অর্থনীতি
  4. আইন-আদালত
  5. আন্তর্জাতিক
  6. আন্দোলন
  7. ইচ্ছেডানা
  8. উদ্যোক্তা
  9. ক‌রোনা মহামা‌রি
  10. কৃষি
  11. ক্যাম্পাস
  12. খেলাধুলা
  13. গণমাধ্যম
  14. চাকুরীর খবর
  15. জাতীয়

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ: ওমান শি‌বি‌রে মোস্তা‌ফি‌জের প্রথম হানা।

‌স্পোর্টস ডেস্ক।
অক্টোবর ১৯, ২০২১ ১০:৫৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

জয়ের ধারায় ফিরে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সুপার টুয়েলভে খেলার আশা বাঁচিয়ে রাখার লক্ষ্য নিয়েই ওমানের বিপক্ষে মাঠে নেমেছে বাংলাদেশ। বাঁচা-মরার এই লড়াইয়ে আগে ব্যাটিং করে নাঈম শেখের ফিফটি ও সাকিবের ৪২ সত্ত্বেও ১৫৩ রানেই গুটিয়ে গেছে টাইগাররা।

জবাব দিতে নামা ওমান প্রথম ওভারে ১২ রান সংগ্রহ করলেও দ্বিতীয় ওভারে এসেই প্রথম হানায় উইকেট তুলে নিলেন কাটার মাস্টার মুস্তাফিজ। যাতে ১৩ রানেই প্রথম উইকেট হারালো স্বাগতিকরা।

মঙ্গলবার (১৯ অক্টোবর) রাতে মাস্কাটের আল আমেরাত ক্রিকেট গ্রাউন্ডে টস জিতে আগে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ। তবে ব্যাটারদের সেই ব্যর্থতায় মাত্র ২১ রানেই দুই উইকেট হারিয়ে আবারো বিপদে পড়ে দলটি। মাঝে সাকিব-নাঈম মিলে বিপর্জয় সামাল দিলেও শেষ দিকে যেন তাসের ঘরের মতই ভেঙে পড়ে ব্যাটাররা।

শুরুতেই ৬ রান করা লিটনের পর অসাধারণ এক ক্যাচের শিকার হয়ে শূন্য রানেই ক্রিজ ছাড়েন ব্যাটিংয়ে প্রমোশন পেয়ে ওয়ান ডাউনে নামা শেখ মাহেদী হাসান। এরপর অবশ্য বিপর্যয় সামলে নিয়ে ধীরে ধীরে খোলস ছেড়ে খেলতে থাকেন নাঈম ও সাকিব। চার-ছয়ের ফুলঝুরি ছুটিয়ে দুজনে মিলে গড়ে তোলেন ৫৩ বলে ৮০ রানের এক অনবদ্য জুটি।

যে জুটিতে দলীয় স্কোর একশ পার করে বাংলাদেশ। তবে অনাকাঙ্ক্ষিত এক থ্রোতে ভেঙে যায় এই মেলবন্ধন। দুর্ভাগ্যজনকভাবে রান-আউট হয়ে ফেরেন নিজের ছন্দে খেলতে থাকা সাকিব আল হাসান, ছুটছিলেন ফিফটির লক্ষ্যেই। তবে ৪২ রানেই ফিরতে হয় তাঁকে। তাঁর ২৯ বলের এই ইনিংসে ছিল ছয়টি দৃষ্টিনন্দন চারের মার।

সাকিব ফিরতেই যেন ছন্দপতন ঘটে বাংলাদেশের ইনিংসেও। একে একে ব্যর্থ হয়ে ফেরেন মুশফিক-রিয়াদকে বসিয়ে রান বাড়াতে নামানো সোহান ও আফিফ। দুজনে ফেরেন যথাক্রমে ৩ ও ১ রান করে। পরক্ষণেই ক্যাচ দিয়ে ফেরেন ফিফটি হাঁকানো নাঈম শেখও। যার ফলে ২ উইকেটে ১০১ রান থেকে ১২২ রানেই ৬ উইকেট হয়ে যায় টাইগারদের স্কোর।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৬৪ রানের ইনিংস খেলে ফেরেন নাঈম। বাঁহাতি এই ওপেনারের ৫০ বলের ইনিংসে ছিল তিনটি চারের সঙ্গে চারটি ছক্কার মার। এছাড়া শেষ দিকে অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের ১০ বলে ১৭ রানের ক্যামিওতে শেষ পর্যন্ত ৯ উইকেট হারিয়ে ১৫৫ রান তুলতে সক্ষম হয়।

ওমানের পক্ষে ১৯তম ওভারে মুশফিক ও সাইফুদ্দিনকে ফিরিয়ে হ্যাটট্রিকের সম্ভাবনা জাগানো পাকিস্তানী বংশোদ্ভূত ফাইয়াজ বাট নিয়েছেন ৩টি উইকেট। তবে মাত্র ১৮ রান দিয়ে ৩টি উইকেট নেয়া বিলাল খানই ছিলেন সবচেয়ে সফল বোলার। এছাড়া কালিমুল্লাহ লাভ করেন ২টি করে উইকেট।

বাংলাদেশ একাদশ: 
মোহাম্মদ নাঈম, লিটন দাস, সাকিব আল হাসান, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ (অধিনায়ক), আফিফ হোসাইন, নুরুল হাসান সোহান (কীপার), শেখ মাহেদী হাসান, মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন, তাসকিন আহমেদ, মুস্তাফিজুর রহমান।

ওমান একাদশ: 
আকিব ইলিয়াস,যতিন্দর সিং, ফাইয়াজ বাট, জীশান মাকসুদ (অধিনায়ক), কাশ্যপ প্রজাপতি, নাসিম খুশি (কীপার), মোহাম্মদ নাদিম, আয়ান খান, সন্দীপ গৌঢ়, কলিমুল্লাহ, বিলাল খান।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।